প্রধানমন্ত্রীও হতে পারেন হিরো আলম: তসলিমা নাসরিন

প্রকাশিতঃ 3:21 pm | November 21, 2018 | ১৫

বগুড়া-৪ আসন থেকে ‘লাঙ্গল’ মার্কা নিয়ে এমপি হতে চান হিরো আলম। সাবেক রাষ্ট্রপতি হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ নেতৃত্বাধীন জাতীয় পার্টির ‘লাঙ্গল’ মার্কা প্রতীকে মনোনয়নপত্র তুলেছেন তিনি।

হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ ও তার জনপ্রিয়তা দিয়েই এমপি হবেন জানান হিরো আলম। তিনি আরো বলেছেন, ‘এমপি কেন মন্ত্রীও হবার পারি। আগেও বলেছি এখনো বলছি, চেহারা দেখে মানুষের বিচার করা যায় না।’

হিরো আলমের নির্বাচন করার সিদ্ধান্তের পর তাকে নিয়ে শুরু হয়েছে নানা আলোচনা-সমালোচনা। বিভিন্ন গণমাধ্যম ছাড়াও সামাজিত যোগাযোগ মাধ্যমে তার পক্ষে-বিপক্ষে কথা বলছেন বিভিন্ন জন।

এবার হিরো আলমকে নিয়ে মুখ খুলেছেন নির্বাসিত লেখিকা তসলিমা নাসরিন। তিনি ফেসবুকে লিখেছেন, ‘বাংলাদেশের মিডিয়াগুলো হিরো আলম নিয়ে পড়েছে। পাগলের মতো তার সাক্ষাৎকার নিচ্ছে সবাই। বাজারের জনপ্রিয় গানের সঙ্গে লিপ মিলিয়ে ভাড়া করা ‘অভিনেত্রী’র সঙ্গে তার যে নাচানাচির ভিডিও ইউটিউবে আছে, সেগুলো নিতান্তই কুরুচিপূর্ণ, হাস্যকর এবং বিরক্তিকর জিনিস।

সেগুলোর দর্শক বাংলাদেশের লক্ষ লক্ষ মানুষ। মানুষের ‘ভালোবাসা’ পেয়ে হিরো আলম এখন ভোটে দাঁড়াচ্ছেন। একসময় মন্ত্রী হবেন। হয়তো প্রধানমন্ত্রীও হবেন। আসলে হিরো আলম বাংলাদেশের মন্ত্রী-প্রধানমন্ত্রী হওয়ার জন্য উপযুক্ত লোক। দেশটাও হিরো আলমের উপযুক্ত হয়ে উঠেছে এতদিনে।

গরিব থেকে ধনী হলে বা স্ট্রাগল করে বড় হলে বা সোজা সরল হলেই কি ভোটে দাঁড়ানোর যোগ্য হয় কেউ? লোকে বলে হয়। দুর্নীতিগ্রস্ত আর কুটিল জটিল রাজনীতিক দেখতে দেখতে মানুষ এখন সাদাসিধে কাউকে দেখলেই তাকে দেশ শাসনের ভার দিতে চায়। সাদাসিধে আর সৎ হলেই যে ভালো রাজনীতিক হওয়া সম্ভব তা তো নয়।

রাজনীতির জগতটাকে একটা সার্কাস বানিয়ে ফেলেছে দেশটা। বাংলাদেশের সংসদে তো কম ক্লাউন নেই। হিরো আলম নামে নতুন এক ক্লাউনের নিশ্চয়ই ওখানে জায়গা হবে।’

তসলিমা নাসরিন